অস্কার মনোনয়ন পেল বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত নাজরীনের ছবি


ওহাইও সংবাদ প্রকাশের সময় : ফেব্রুয়ারি ১, ২০২৪, ১২:০৯ পূর্বাহ্ণ /
অস্কার মনোনয়ন পেল বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত নাজরীনের ছবি

ওহাইও সংবাদ : চলচ্চিত্র জগতের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ পুরস্কারের নাম একাডেমি এওয়ার্ডস বা অস্কার। চলচ্চিত্র জগতের মানুষেরা প্রথমত মনোনয়ন পাওয়ার জন্য, এরপর মনোনয়ন পাওয়ার পর এওয়ার্ড পাওয়ার আশায় প্রতীক্ষা করে থাকে। গত মঙ্গলবার ঘোষিত হলো ২০২৩ সালে নির্মিত নানা ক্যাটাগরির চলচ্চিত্রের অস্কার এওয়ার্ডের মনোনয়ন। এবারের মনোনয়ন বাংলাদেশীদের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এ কারণে যে মনোনয়ন তালিকায় একজন বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত তরুণীরও নাম রয়েছে। বৃটিশ—আমেরিকান নাজরিন চৌধুরীর স্বল্পদৈর্ঘ চলচ্চিত্র ‘রেড হোয়াইট এন্ড ব্লু’ বেস্ট শর্টফিল্ম ক্যাটেগরিতে মনোনয়ন পেল ৯৬তম একাডেমি এওয়ার্ডের তালিকায়। নাজরিন চৌধুরী নির্দেশক ছাড়াও স্ক্রিন রাইটার ও অভিনয় শিল্পী। তিনি তার মনোনয়ন পাওয়া স্বল্পদৈর্ঘ ছবির কো—প্রোডিউসার। অপর কো—প্রোডিউসার স্যারা ম্যাকফারলেন। এই শর্ট ফিল্মটি নির্মিত হয়েছে ফেডারেল সরকারের এ্যাবরশন নীতিমালার প্রতিবাদ হিসাবে। অন্তঃসত্ত্বা এক তরুণীর এ্যাবরশন নিয়ে জটিলতা এর মূল প্রতিপাদ্য।

উল্লেখ্য নাজরিন চৌধুরী এর আগে আমাজন প্রাইমের ‘জ্যাক রায়ান’ সিরিজের জন্য একটি এপিসোড লিখেছেন, বিবিসি ওয়ানের ‘ইস্টএন্ডার্স’ সিরিজের জন্য লিখেছেন দুটি এপিসোড, এএমসি চ্যানেলের ‘ফিয়ার এন্ড ওয়াকিং ডেড’ সিরিজের জন্য ৮টি এপিসোড লিখেছেন। কিন্তু শর্টফিল্ম ‘রেড, হোয়াইট এন্ড ব্লু’ নিজে নির্দেশনা দিয়েছেন।

নাজরিন চৌধুরীর জন্ম সাউথ—ওয়েস্ট লন্ডনে। তার বাবা—মা বাংলাদেশী।  তিনি কিংস কলেজ থেকে বায়োমেডিকেল সাইন্সে বিএসসি এবং নর্দান ফিল্ম স্কুল থেকে স্ক্রিনরাইটিংএ মাস্টার্স করেন। বর্তমানে তিনি লসএঞ্জেলেসে বাস করেন।

২০০১ সাল থেকে কাজ শুরু করে এ পর্যন্ত তিনি বৃটেনের বিভিন্ন টিভি চ্যানেলের জন্য প্রায় ৩০টি স্ক্রিপ্ট লিখেছেন।  ২০০৬ সালে তার লেখা প্রথম উপন্যাস ‘মাই ইংল্যান্ড’ পায় আর্টস কাউন্সিল ইংল্যান্ডের গ্রান্ট। এছাড়াও তিনি পেয়েছেন ডজন খানেক এওয়ার্ড ও সম্মাননা।